Home / লাইফস্টাইল / “সেক্স ” নামেই যখন উৎসব

“সেক্স ” নামেই যখন উৎসব

ঢাকা,  ১৩ জানুয়ারি

ডেস্ক: উদ্দামতা, আনন্দ, উচ্ছ্বলতা এই তিনটে শব্দই মোটামুটিভাবে সেক্সের সঙ্গে সমার্থক। আর যেখানে আনন্দ রয়েছে সেখানে ফেস্টিভ্যাল বা উৎসব থাকবে না তাই কখনও হয়। তাই সেক্সের আনন্দ লুটেপুটে নিতে বিশ্ব জুড়ে পালিত হয় বেশ কিছু সেক্স ফেস্টিভ্যাল। আর সবচেয়ে মজার হল এই ফেস্টিভ্যালে অংশগ্রহণকারীদের ডিকশনারিতে “লজ্জা” শব্দটা কিন্তু একেবারেই থাকে না। যৌনতার চরম পরিতৃপ্তিটুকু নিতেই বিভিন্ন দেশে আয়োজিত হয় এইসব ফেস্টিভ্যাল। এক নজরে ঘুরে দেখা যাক বিশ্বের সেক্সিয়েস্ট ফেস্টিভ্যাল গুলোতে।

১. কিংকি সেক্সি : নমার্কের কোপেনহেগেনে সেক্স ফেস্টিভ্যালের নমুনা শুনলে চমকে যাবেন আপনি। বলা হয় এটা নাকি বিশ্বের অন্যতম “কিংকি সেক্সি ফেস্টিভ্যাল”। এখানকার বাসিন্দারা নিজেদের সেক্স ফেস্টিভ্যালে ফোকাস করেন কিঙ্ক থুড়ি এমন কিছু জিনিস যা বাস্তবে সোজা হলেও তাঁকে কার্ভি বানানো যায়। বাকিটা না হয় আপনারাই বুঝে নিন।

২. সেক্সপো:-দক্ষিণ আফ্রিকা এবং অস্ট্রেলিয়া এই দুই দেশে আয়োজিত হয় সেক্সপো। বিশ্বের অন্যতম অ্যাডাল্ট ফেস্টিভ্যাল এটি। যৌনতার চরম পর্যায়ের উপস্থিতি দেখা যায় এই উৎসবে। এখানে আসা সব মহিলা এবং পুরুষরা ড্রেসআপ করে আসেন কোনও সিনেমা বা কমিক চরিত্র অনুযায়ী। এর সঙ্গে এই ফেস্টিভ্যালের আরেকটি বৈশিষ্ট্য হল, এখানে ছেলে এবং মেয়েদের উদ্দাম নাচের সঙ্গে থাকে রগরগে পর্নোগ্রাফির মতো সেক্সের ছোঁয়াও।

৩. Kutemajrvi সেক্স ফেস্টিভ্যাল:- ফিনল্যান্ডের একটি ছোট গ্রামে আয়োজিত হয় এই সেক্সচুয়াল ফেস্টিভ্যাল। তবে গ্রামটি ছোট বা প্রত্যন্ত হলেও উৎসবে কিন্তু কোনও খামতি থাকেনা। সেখানে উত্তেজনা থেকে যৌনতা সবই ভরপুর। সেক্স টয়-এর দোকান থেকে শুরু করে এই ফেস্টিভ্যালে আপনি পাবেন ন্যুড বিউডি শো, স্ট্রিপ ডান্স এবং সর্বোপরি এখানে থাকে সেক্স সম্পর্কিত একটি আলোচনা সভায়। ভাবছেন তো এমন যৌন সুখে আবার জ্ঞান কেন? সেই জ্ঞানও যখন সেক্স নিয়েই তাহলে আশা করাই যায় সেটাও হবে যথেষ্ট সেক্সি এবং হ্যাপেনিং।

৪.লাভ প্যারেড:-বার্লিনে অনুষ্ঠিত হয় এই ফেস্টিভ্যাল। এমনিতে ইউরোপিয়ান কান্ট্রি খুব কট্টর হলেও বিষয় যখন সেক্স তখন সেখানে বিন্দুমাত্র লজ্জাশরমও দেখান না অংশগ্রহণকারীরা। গোটা বার্লিনের রাস্তা জুড়ে দেখা যায় এই সেক্সসুয়াল প্যারেড।

৫.ইরোটিকা:- শুধু জার্মানি নয় সেক্স ফেস্টিভ্যালের তালিকায় রয়েছে লন্ডনও। এমনকি বলা হয় লন্ডনের এই ইরোটিকা সেক্স ফেস্টিভ্যাল সম্ভবত বিশ্বের সবচেয়ে বড় এবং সেক্সি সেক্স ফেস্টিভ্যাল। যৌনতার চরমতম রূপ এই ফেস্টিভ্যালে পাবেন আপনি। শুধু চোখের আরাম নয় এখানে আপনি পাবেন শারীরিক সুখও। প্রায় ৫০ হাজার থেকে ১ লক্ষ লোক এই ফেস্টিভ্যালে প্রতি বছর যোগ দেন। থাকে স্ট্রিপ শো থেকে শুরু করে সবরকম যৌন উন্মাদনা। আসেন বহু সেলিব্রিটিও।

৬. ইন্টারন্যাশনাল ইরোটিক ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল:- স্পেনের সুন্দরীদের প্রতি ফিদা কিন্তু বিশ্বের অধিকাংশ পুরুষ। সেখানে সেক্স ফেস্টিভ্যালের কথা হচ্ছে আর স্পেনের নাম আসবে না তা কী করে হয়। আর জানেন কী এই ফেস্টিভ্যাল কোথায় আয়োজিত হয়? আপনার বার্সেলোনাতে। এতদিন শুধু ফুটবল ক্লাবের নাম জেনে থাকলে এ বার সেই ধারণা পাল্টান। জেনে রাখুন বিশ্বের অন্যতম ইরোটিক সেক্স থুড়ি ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল এটি। শুধু নামে নয় প্রকৃত অর্থেই এটি ইরোটিক। আর ফিল্মের সম্পর্ক থাকায় এখানে আলোচনাও হয় ফিল্ম নিয়ে। কিন্তু সেই ফিল্মের সবই কিন্তু অ্যাডাল্ট ফিল্ম সম্পর্কিত আলোচনা। আর শুধু আলোচনাই নয় থাকে বিভিন্ন ইরোটিক অ্যাডাল্ট অ্যাক্টিভিটিও। সেক্স সম্পর্কিত সমস্ত রকম ট্যাবু ভেঙে দেওয়ার জন্য এই ফেস্টিভ্যালে থাকে ফেটিশ পার্টি এবং সেক্সি অন্তর্বাসের এক্সপো।

৭. পন ফেস্টিভ্যাল:-ইন্দোনেশিয়ার এই সেক্স ফেস্টিভ্যাল জগৎ বিখ্যাত। বছরে এক নয় দুই নয় এক্কেবারে সাত সাত বার আয়োজিত হয় এই ফেস্টিভ্যাল। আর উৎসব চলাকালীন অচেনা মানুষদের সঙ্গে সেক্স করেন এখানকার নারী-পুরুষ। কারণ তাঁদের মতে অজানা, অচেনা লোকের সঙ্গে যৌন সঙ্গমে লিপ্ত হলে তাঁরা সৌভাগ্যের অধিকারী হবেন।

৮. ফলসম স্ট্রিট ফেয়ার:-আপনিকি কী ওয়াইল্ড সেক্স পছন্দ করেন? কিংবা ফেটিশ সেক্স? তাহলে এক বার অন্তত ঘুরে আসুন সানফ্রান্সিসকোর এই সেক্সিয়েস্ট ফেস্টিভ্যাল থেকে। যৌন সুখের চরমতম আস্বাদ পাবেন এমনটাই আশা রাখবেন।

৯. ইরোটিকন:-পোল্যান্ডে ৪-৫ দিন ধরে আয়োজিত হয় এই সেক্স ফেস্টিভ্যাল। সেক্স টয়ের শো ছাড়াও এখানে থাকে এক অভিনব ইভেন্ট। সেক্সিও বটে। আর সেই ইভেন্ট হল সেক্স জিমন্যাস্টিক। থাকে সেক্স সম্পর্কিত ওয়ার্কশপ এবং আলোচনা সভাও।

 

১০. Nudes-A-Poppin :-আমেরিকায় আয়োজিত এই সেক্স ফেস্টিভ্যাল আয়োজিত হয় বিশ্বের অন্যতম নটোরিয়াস নুডিস্ট রিসর্টে। উপস্থিত থাকেন পর্ন জগতের বহু তারকা। আর এই ফেস্টিভ্যালের মূল আকর্ষণ হল এখানকার লাইভ সেক্স অ্যাক্ট।

সেরানিউজ24/ আই.জে

About Desk

Check Also

কাঁদলে কমবে ওজন

কাঁদলেও উপকার হয়‌!‌ জানতেন?‌ মন তো হালকা হয়ই, তা ছাড়াও আর একটা বড় লাভ হয়। …

Leave a Reply